অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম ২০২৪

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম, অ্যাপ থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম, ওয়েবসাইট থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম, ঘরে বসে মোবাইল কিংবা কম্পিউটার ব্যবহার করে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম সহ যাবতীয় তথ্য জানুন আজকের পোস্টে। 

অনলাইন থেকে ট্রেনের টিকেট কাটার নিয়ম

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার জন্য ব্রাউজার থেকে Rail Sheba ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে NID তথ্য দিয়ে একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করুন। যেমন: নাম, nid নম্বর, জন্ম তারিখ ও ইমেইল এড্রেস। একাউন্ট রেজিস্ট্রেশনের পর। আপনার গন্তব্য নির্বাচন করে পেমেন্ট করলে অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটা হয়ে যাবে। 

আরোও পড়ুন: ফ্রি টাকা ইনকাম করার অ্যাপ | বিশ্বস্ত ৫টি ইনকাম অ্যাপ।

বিস্তারিত: অনলাইন থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার জন্য প্রথমে আপনার মোবাইল কিংবা কম্পিউটারের ডাটা সংযোগ চালু করুন। তারপর মোবাইল কিংবা কম্পিউটারে থাকা যেকোনো একটি ব্রাউজার ওপেন করুন এবং সার্চ অপশনে গিয়ে Train ticket bd লিখে সার্চ করুন। তারপর সার্চ রেজাল্টে আসা প্রথম ওয়েবসাইট (Bangladesh Railway) ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন।

ওয়েবসাইটে প্রবেশের পর র্টামস এন্ড কন্ডিশন পেইজ প্রদর্শিত হবে। সেখান থেকে I agree তে ক্লিক করুন। তারপর উপরের ডান দিকের 3 ডট অপশন থেকে ‘REGISTER’ অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে একাউন্ট Registration ফর্ম দেখতে পাবেন। এখন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশনের জন্য NID অনুযায়ী ফর্মে থাকা তথ্য গুলো সঠিকভাবে পূরণ করুন। যেমন: আপনার NID নম্বর, জন্ম তারিখ ও মোবাইল নম্বর।

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট বুকিং

তথ্য গুলো দেওয়া হয়ে গেলে নিচে থেকে I’m not robot ক্যাপচাটি পূরণ করে Verify বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার নম্বরে ৬ সংখ্যার OTP কোড যাবে। সেটি বসিয়ে Continue অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনাকে পরবর্তী ধাপে নিয়ে আসবে। পরবর্তী ধাপে এসে আপনাকে আরোও কিছু তথ্য ও একটি পাসওয়ার্ড সেট করতে হবে। 

যেমন: Password, Confirm Password, Email address , Postal code এবং Address দিতে হবে। আবারও সবগুলো তথ্য সঠিকভাবে দিয়ে Registration অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার একটি একাউন্ট তৈরি হয়ে যাবে। 

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম ২০২৪

এখন আপনার সামনে ওয়েবসাইটের হোম পেইজ চলে আসবে। যেখান থেকে আপনাকে আপনার গন্তব্য বাছাই করতে হবে। গন্তব্য বাছাই করার জন্য From ঘরে আপনি কোথায় থেকে ট্রেনে চড়বেন এবং To ঘরে আপনি কোথায় যেতে চান সেটি Type করুন। তারপর date of journey (আপনি কত তারিখে রওনা হবেন) সিলেক্ট করুন এবং Choose a class অপশন থেকে আপনার ট্রেনের ধরণ নির্বাচন করে ‘Search Train’ অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার জন্য ঐ তারিখে available ট্রেন গুলোর তালিকা ও ভাড়া ও পৌছানোর সময় সহ বিস্তারিত দেখতে পাবেন। যেমন: 

  • CHITRA EXPRESS
  • SUNDARBAN EXPRESS
  • SUBARNA EXPRESS
  • EKOTA EXPRESS
  • TISTA EXPRESS

এখন সিট বুকিং করার জন্য ‘Book now’ অপশনে ক্লিক করে আপনার পছন্দ এবং প্রয়োজন অনুযায়ী যত গুলো সিট প্রয়োজন সিলেক্ট করে ‘Continue purchase’ বাটনে ক্লিক করুন। মনে রাখবেন সাদা কালার সিট গুলো সুধু মাত্রা বুকিং করা যাবে। কেননা অরেঞ্জ কালার সিটগুলো ইতিমধ্যে বুকিং হয়ে গেছে।

আরোও পড়ুন: ফোনের RAM বাড়ানোর উপায়।

Continue purchase এ ক্লিক করার পর আপনি আপনার Passenger details ও টাকার পরিমান দেখতে পাবেন। যেমন:

  • Name
  • Adult
  • Mobile No
  • Email
  • Journey details
  • Date
  • Seat No ইত্যাদি। 

এখন নিচে থেকে Proceed অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার সামনে পেমেন্ট গেটওয়ে গুলো শো করবে। আপনি মূলত দুটি উপায়ে পেমেন্ট করতে পারবেন। 

  • Mobile banking ও
  • Debit/credit card

এখন বিকাশে/রকেট/নগদ পেমেন্ট করার জন্য Mobile banking অপশন থেকে যেকোন একটি বেছে নিন। তারপর আপনার একাউন্ট নম্বর দিয়ে Confirm বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার নম্বর একটি ভেরিফিকেশন কোড যাবে। সেই কোডটি বসিয়ে আবার ও Confirm অপশনে ক্লিক করুন। তারপর আপনার একাউন্টের পিন নম্বর দিয়ে confirm অপশনে ক্লিক করলে একাউন্ট থেকে পর্যাপ্ত পরিমান টাকা কেটে নিবে এবং আপনার ট্রেনের টিকিট confirm হয়ে যাবে।

টিকিট কনফার্ম হওয়ার পর ডাউনলোড অপশন পেয়ে যাবেন। সেখান থেকে টিকিট ডাউনলোড করে প্রিন্ট করে নিন। তারপর রওনা হওয়ার দিন টিকিট কপি দেখিয়ে ট্রেনে চড়তে পারবেন। 

 

অ্যাপ থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

অনলাইন ছাড়াও আপনি চাইলে ‘রেল সেবা’ এপ্লিকেশন থেকে ঈদের অগ্রিম ট্রেনের টিকিট  বুকিং করতে পারবেন। যারা ওয়েবসাইট ব্যবহারে অভ্যস্ত নয় তারা চাইলে Rail Sheba app ব্যবহার করে দেখতে পারেন। যেভাবে রেল সেবা অ্যাপ ব্যবহার করে ট্রেনের টিকিট কটবেন তা নিচে তুলে ধরা হলো: 

অ্যাপ থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার জন্য প্রথমে আপনার মোবাইল কিংবা কম্পিউটারে ডাটা সংযোগ চালু করুন। তারপর play store-এ গিয়ে সার্চবারে ‘Rail Sheba’ লিখে সার্চ করুন এবং সার্চ রেজিল্টের আসা Rail Sheba-Bangladesh railway অ্যাপটি install করুন। অ্যাপটি সম্পূর্ন install হওয়ার পর ওপেন করুন। তাহলে

  • Register ও
  • Login 

করার অপশন পেয়ে যাবেন। এখন Rail Sheba অ্যাপে যদি আপনার পূর্ব একাউন্ট থাকে তাহলে Login অপশনে ক্লিক করে লগইন করুন। আর যদি প্রথম বার Rail Sheba অ্যাপটি ব্যবহার করে থাকেন তাহলে Register অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার সামনে একটি পেইজ চলে আসবে সেখানে আপনার NID কার্ডের তথ্য অনুযায়ী রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। যেমন: প্রথমে আপনার মোবাইল নম্বর, তারপর NID নম্বর, জন্ম তারিখ ও I’m not a Robot ক্যাপচা পূরণ করে  Verify অপশনে ক্লিক করুন। 

অ্যাপস থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

তারপর পরবর্তী অপশনে এসে আপনাকে একটি পাসওয়ার্ড দিতে হবে। যেটি ব্যবহার করে আপনি পরবর্তীতে এই অ্যাপে লগইন করতে পারবেন‌। পাসওয়ার্ড সেট করার জন্য প্রথমে Password, তারপর Confirm Password, Email address , Postal code এবং Address দিয়ে নিচে থেকে Registration অপশনে ক্লিক করুন। 

মনে রাখবেন আপনি এক ই-মেইল এ্যাড্রেস দিয়ে বার বার একাউন্ট তৈরি করতে পারবেন না। এক ই-মেইল দিয়ে একবার একাউন্ট খুলতে পারবেন। Register অপশনে ক্লিক করার পর আপনার মোবাইল নম্বরে একটি ভেরিফিকেশন কোড/OTP যাবে। কোডটি সঠিকভাবে বসিয়ে Verify অপশনে ক্লিক করুন। এখন আপনাকে পরবর্তী অপশনে নিয়ে যাবে সেখানে একটি নতুন পেইজ দেখতে পাবেন। সেখান থেকে ‘I agree’ অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার একাউন্ট তৈরি হয়ে যাবে।

 

অ্যাপ থেকে ট্রেনের টিকিট কাটার প্রক্রিয়া

একাউন্ট তৈরির পর এখন টিকিট কাটার জন্য আমাদের আইডিটি সম্পূর্ণ প্রস্তুত। এখন ট্রেনের টিকিট কাটার জন্য Select station অপশনে ক্লিক করে আপনি কোন স্টেশন থেকে রওনা দিতে চাচ্ছেন সেটি সিলেক্ট করুন। উদাহরণ স্বরূপ, খুলনা, ঢাকা, চট্টগ্রাম ইত্যাদি। 

তারপর  দ্বিতীয় Select station অপশনে আপনি কোন জায়গায় নামবেন অর্থাৎ আপনার গন্তব্যের স্থান নির্বাচন করুন। উদাহরণ স্বরূপ খুলনা, ঢাকা, কুমিল্লা। তারপর class এবং তারিখ সিলেক্ট করুন। এখন সকল তথ্য সঠিকভাবে দেওয়ার পরে ‘Search Trains’ বাটনে ক্লিক করুন।

অনলাইনে অগ্রিম ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

তাহলে আপনার জন্য ঐ তারিখে available ট্রেন গুলোর তালিকা ও ভাড়া ও পৌছানোর সময় সহ বিস্তারিত দেখতে পাবেন। যেমন: 

  • CHITRA EXPRESS
  • SUNDARBAN EXPRESS
  • SUBARNA EXPRESS
  • EKOTA EXPRESS
  • TISTA EXPRESS

এখন আপনার যেই ট্রেনটি পছন্দ হয় সেই ট্রেনটির Class এর নিচে থাকা ‘BOOK NOW’ বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনাকে ভিতরে নিয়ে যাবে। এখন ভিতরে আসার পর আপনি Booked ও ফাঁকা চেয়ার গুলো দেখতে পাবেন। যেগুলো সাদা সেগুলো ফাঁকা আছে। আর যেগুলো অরেঞ্জ কালার সেগুলো ইতিমধ্যে Booked/বিক্রি হয়ে গেছে।

আরোও পড়ুন: Wifi স্পিড বাড়ানোর উপায় | থাকছে ৭টি কর্যকরী টিপস। 

এখন সাদা কালার সিট গুলোর মধ্যে থেকে আপনার পছন্দ অনুযায়ী যত গুলো সিট লাগবে সবগুলো সিলেক্ট করুন। সিট বেছে নেওয়ার পর নিচে থেকে CONTINUE PURCHASE বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার সামনে একটি পেইজ চলে আসবে। সেখান প্রথমে আপনার নাম চলে আসবে। তারপরে Adult/Child সিলেক্ট করুন। এখন নিচে আপনার ইমেইল এড্রেস, মোবাইল নাম্বার এবং আপনার ট্রেনের টিকিট দেখতে পাবেন। যেমন: কয়টা বাজে ট্রেন ছাড়বে এবং কয়টা বাজে পৌছাবে সকল কিছু দেখতে পাবেন। 

এখন আপনি ‘Proceed’ অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে পরবর্তী অপশনে নিয়ে যাবে। সেখানে আপনার টিকিট কাটার জন্য মোট কত টাকা খরচ হবে সেটি দেখতে পাবেন। এখন টাকা পেমেন্ট করার জন্য আপনার জন্য প্রযোজ্য পেমেন্ট গেটওয়েটি বেছে নিন। যেমন:

  • বিকাশ
  • রকেট
  • নগদ
  • উপায়
  • Visa card 
  • Mastercard এবং 
  • DBBL Nexus ইত্যাদি

উদাহরণ স্বরূপ বিকাশ সিলেক্ট করলাম। এখন আপনার সামনে একটি নতুন পেইজ চলে আসবে। সেখান আপনার বিকাশ নাম্বারটি দিয়ে Confirm অপশনে ক্লিক করুন। 

ট্রেন টিকিট পেমেন্ট পরিশোধ

এখন আপনার বিকাশ নাম্বারে একটি ভেরিফিকেশন কোড যাবে। সেই কোডটি বসিয়ে আবার ও Confirm ক্লিক করুন। তারপরে আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন নাম্বার দিয়ে Confirm অপশনে ক্লিক করুন। এখন পরবর্তী অপশনে গিয়ে সেখানে থেকে Download Ticket  অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার ট্রেনের টিকিটি আপনার ডিভাইসে ডাউনলোড হয়ে যাবে। 

 

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম FAQ

  • প্রশ্ন: আমার একাউন্ট থেকে অন্যকারো নামে ট্রেনের টিকিট কাটা যাবে কিনা?
  • উত্তর: হ্যাঁ, পারবেন। 
  • প্রশ্ন: একটি nid দিয়ে কতটি একাউন্ট করা যাবে? 
  • উত্তর: একটি nid সুধু মাত্র একটি একাউন্ট তৈরি করা যাবে।
  • প্রশ্ন: এক সাথে কতটি টিকিট কাটা যাবে?
  • উত্তর: আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী ১/২/৩ বেশি সিট কাটতে পারবেন। 
  • প্রশ্ন: আমার NID নেই তাহলে কিভাবে রেজিস্ট্রেশন করব?
  • উত্তর: যাদের NID নেই তারা পরিবারের অন্যকোন সদস্যের nid দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 Comment